Tuesday , 18 May 2021
সংবাদ শিরোনাম
সেনবাগে দপায় দপায় সন্ত্রাসী হামলা ভাচুর, একই পরিবারের নারী পুরুষ সহ আহত-১০ জন

সেনবাগে দপায় দপায় সন্ত্রাসী হামলা ভাচুর, একই পরিবারের নারী পুরুষ সহ আহত-১০ জন

April 18, 2021 তে 5:42 pm

সেনবাগ  প্রতিনিধি
পূর্ব বিরোধের জের নোয়াখালীর সেনবাগে দপায় দপায় ব্যবসায়ীর বসত বাড়ীতে সন্ত্রাসী হামলা ও ভাচুর চালিয়ে একই পরিবারের নারী পুরুষ সহ আহত ১০ জন কে আহত করে সন্ত্রাসীরা।

ঘটনাটি শনিবার সকাল সাড়ে ১০টার সময় উপজেলার নবীপুর ইউনিয়নের দেবীশিংপুর গ্রামের ঠান্ডার বাড়ীতে ঘটে। এঘটনায় আহত ব্যবসায়ী মোঃ শাহজাহান বাদী হয়ে ৫জন কে অভিযুক্ত করে থানার একটিল লিখিত অভিযোগ দায়ের করেন।

হাসপাতালে ভর্তি আহত শাহজাহান জানান, উপজেলার নবীপুর ইউনিয়নের সোমবারীয়া বাজারে গরু, ইট,পাথরের ব্যবসা করে আসিতেছে। দীর্ঘ দিন থেকে একই এলাকার আবদুর রশিদের ছেলে মো একরাম হোসেন প্রায় তার কাছে চাঁদা দাবী করে আসছে। ইতি পূর্বে তার থেকে চাঁদার কিছু টাকা নিয়েও গেছে। ঘটনার দিন শাহাজাহান বাড়ী থেকে সোমবারিয়া বাজারে যাওয়ার পথে একরামের নেতৃত্বে একই গ্রামের ভূইয়া বাড়ীর ছানা উল্ল্যার ছেলে মো মাঈন উদ্দিন ও আলা উদ্দিন, গোপালপুর হইচছা বাড়ীর মো সুমন, পার্শ্ববর্তি বেগমগঞ্চ উপজেলার কাদিরপুর পাকি বাড়ীর আবদুর রশিদের ছেলে মো মিলন তার গতিরোধ করে শুরু করে এলোপাড়াড়ি হামলা। এসময় পিতার আর্তচিৎকার শুনে পুত্র সাইফুল ইসলাম এগিয়ে এলে তারা তার উপরও একই স্টাইলে হামলা চালায়। পিতা ও পুত্র নিরুপাই হয়ে প্রাণ বাঁচাতে বাড়ীতে গিয়ে আশ্রায় নিলে সন্ত্রাসীরা সেই খানে তাদের উপর হামলা অব্যহত থাকে। এ দৃশ্য দেখে ব্যবসায়ী শাহজাহানের বৃদ্ধ মাতা ময়মুনা খাতুন, স্ত্রী শাহীনুর আক্তার, মেয়ে ফর্জানা আক্তার ঘটনার প্রতিবাদ করলে সন্ত্রাসীরা এসময় তাদের উপর একই ষ্টাইলে হামলা চালিয়ে বসত ঘর ব্যাপক ভাংচুর চালায়।

এর পর তিনি বাড়ী থেকে আহত অবস্থায় সোমবারিয়া বাজারে এলে ২য় দপায় আবারো তার উপর হামলা চালিয়ে নগদ টাকা ও দামী মোবাইল চিনিয়ে নিয়ে যায় বলে সন্ত্রাসীরা। এঘটনার প্রতিবাদ করায় আহত শাহজাহানের ভাই হারুনুর রশিদ ও নাছির উদ্দিনের উপরও হামলা চালিয়ে আহত করে। উভয় এঘটনায় একই পরিবারের নারী পুরুয় সহ ১০ জন কে আহত করে সন্ত্রাসীরা।

এসময় স্থানিয় লোকজন এগিয়ে এসে রক্তাত্ব অবস্থায় বৃদ্ধ ময়মুনা খাতুন,ব্যবসায়ী মোঃ শাহজাহান,তার স্ত্রী শাহীনুর আক্তার কে সেনবাগ সরকারী হাসপাতালে ভর্তি করে।

বাকী আসামীদের স্থানিয় ভাবে চিকিৎসা দেয়া হয়। এই ঘটনার পর থেকে সন্ত্রাসীরা হত্যা করে লাম গুম করার হুমকি প্রদান করে আসছে বলে শাহজাহানের পরিবারের লোকজন জানান।

এ ঘটনায় আহত শাহজাহান বাদী হয়ে ৫ জন কে আসামী করেন সেনবাগ থানায় একটি লিখিত অভিযোগ দায়ের করেন।

এ বিষয়ে সেনবাগ থানার অফিসার ইনচার্জ মো আবদুল বাতেন মৃধা জানান,তিনি অফিসে আছেন অভিযোগ টি ডিউটি অফিসারের কাছে আছে। বিষয়টি দিখে ব্যবস্থা নিবেন।

Share Button

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

*

Scroll To Top