Thursday , 22 October 2020
সংবাদ শিরোনাম
কেশারপাড় ইউনিয়ন থেকে চেয়ারম্যান পদে আওয়ামীলীগের মনোনয়ন প্রত্যাশী যুবলীগ নেতা মোঃ আলমগীর হোসেন

কেশারপাড় ইউনিয়ন থেকে চেয়ারম্যান পদে আওয়ামীলীগের মনোনয়ন প্রত্যাশী যুবলীগ নেতা মোঃ আলমগীর হোসেন

October 6, 2020 তে 10:38 pm

জাহাঙ্গীর পাটোয়ারী
কেশারপাড় ইউনিয়ন পরিষদ থেকে আগামী ইউনিয়ন পরিষদ নির্বাচনে চেয়ারম্যান পদে মনোনয়ন প্রত্যাশী উপজেলা যুবলীগের যুগ্ন আহবায়ক মোঃ আমলগীর হোসেন।

মোঃ আমলগীর হোসেন কেশারপাড় ইউনিয়ন ছাত্রলীগের সভাপতি দায়িত্ব পালনের মধ্যে দিয়ে রাজনৈতিক কর্মকান্ড শুরু করেন। এর পরে আসেন উপজেলা যুবলীগের দায়িত্বে ২য় বারের মত। পাশা পাশি তিনি বিভিন্ন সামাজিক সংগঠন ও শিক্ষা প্রতিষ্ঠানের সাথে জড়িত রয়েছেন। কানকিরহাট বিশ্ব বিদ্যালয় কলেজের পরিচালনা পর্ষদের সদস্য, কানকিরহাট বালিকা উচ্চ বিদ্যালয়ের সাবেক সভাপতি, কানকির হাট ফাজিল মাদ্রাসা ও কানকিরহাট বহুমুখি উচ্চ বিদ্যালয়ের শিক্ষানুরাগী সদস্য, কানকির হাট বাজার ব্যবসায়ী কমিটির সহ-সভাপতি। কানকিরহাট বাজারে একজন বিশিষ্ট ব্যবসায়ী হিসেবে সুনামের সহিত ব্যবসা করে আসছে।

ইতি মধ্যে পাড়া মহল্লায় চায়ের ষ্টল গুলোতে কথাও শুরু হয়ে গেছে। দিন যতই যাচ্ছে ততই আলোচনা বাড়ছে আগামী ইউনিয়ন পরিষদ নির্বাচন নিয়ে।
দিন ক্ষন ঠিক থাকলে আগামী বছর হতে পারে পরবতি ইউনিয়ন পরিষদ নির্বাচন। তবে এতে বাধা হতে পারে মহামারি করোনা। এ কারনে সঠিক সময়ে নাও হতে পারে ইউনিয়ন পরিষদ নির্বাচন।

এই নিয়ে সম্বাব্য প্রার্থীরা তাদের অবস্থান থেকে কাজ করে যাচ্ছে। কেউ সরাসরি আবার কেউ নানা সামাজিক কর্মকান্ডে চালিয়ে যাচ্ছে নির্বাচন কে সামনে রেখে। মহামারি করোনায় অনেক কিছুই থমকে দিলেও আলোচনা কিন্তু চলছে সর্বত্র। কে হচ্ছে আগামী দিনে ইউনিয়নের কান্ডারী। এই নিয়ে ক্ষমতাসীন দলে প্রার্থীদের মধ্যে উৎসাহ থাকলেও বিরোধীদের চিত্র বিপরিত।

ইউনিয়ন পরিষদ নির্বাচন নিয়ে ইতি মধ্যে সেনবাগ উপজেলার ২নং কেশারপাড় ইউনিয়নে কাজ শুরু করে দিয়েছে উপজেলা যুবলীগের যুগ্ন আহবায়ক মোঃ আমলগীর হোসেন । দীর্ঘ দিন থেকে ২ নং কেশারপাড় ইউনিয়নে সামাজিক কর্মকান্ডে নিয়োজিত রয়েছেন এই সাবেক ছাত্র বর্তমান যুবনেতা। রয়েছে নানা সামাজিক কর্মকান্ডে নিয়োজিত।

মোঃ আমলগীর হোসেন বলেন, আমি মুজিব আর্দশের এক জন সৈনিক। সেই ছাত্রজীবন থেকে সেই আর্দশ বুকে লালন করে আসছি। আমি গেল নির্বাচনে কেশারপাড় ইউনিয়ন পরিষদ থেকে দলের এক জন প্রার্থী ছিলাম। সেই সময় আমাদের এমপি মহোদয় বলেছে পরবর্তি ইউনিয়ন পরিষদ নির্বাচনে আমাকে কেশারপাড় ইউনিয়ন থেকে আওয়ামীলগের দলীয় মনোনয়ন আমাকে দেবে। আমি ও আমার অবস্থান থেকে আশাবাদী দল আমাকে মনোনয়ন দেবে। সেই হিসেবে আমি আমার অবস্থান থেকে কাজও করে যাচ্চি।

Share Button

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

*

Scroll To Top